• শিরোনাম

    ৬৯ বছর বয়সেও ‘মাঝি’ শেফালী খাতুন

    মানচিত্র ডেস্ক | ২৭ অক্টোবর ২০১৯ | ১২:৪৭ পূর্বাহ্ণ

    ৬৯ বছর বয়সেও ‘মাঝি’ শেফালী খাতুন

    শেফালী খাতুন। বয়স সত্তর ছুঁই ছুঁই। নদী পাড়েই একটি টিনের ছাপড়া ঘরে অসুস্থ স্বামীকে নিয়ে বসাবাস এই বৃদ্ধার। অভাব অনটনের সংসারে তিলে তিলে বড় করা তিন সন্তানের কাছে জায়গা হয়নি বৃদ্ধ বাবা-মার। তারা এখন আলাদা থাকেন। যে বয়সে শেফালী খাতুনের আরাম আয়েশ করার কথা সেই বয়সে তিনি ডিঙি নৌকায় মানুষকে পারাপার করে উপার্জন করেন।

    রাত-বিরাতে নদী পাড়ের মানুষের ভরসা শেফালী খাতুনের ডিঙি নৌকা। তাই এলাকাবাসী তার নাম দিয়েছেন ‘ঘাটমাঝি শেফালী’। নদী পারাপার করে যে টাকা উপার্জন করেন সেই টাকায় ওষুধ কেনাসহ কোনমতে জীবিকা নির্বাহ করে থাকেন তিনি। তবে শেফালী খাতুনের ভাগ্যে জোটেনি কোন ভাতার কার্ড বা সরকারী কোন সুযোগ সুবিধা।

    পাবনার চাটমোহর উপজেলার ডিবিগ্রাম ইউনিয়নের প্রত্যন্ত অঞ্চল কাঁটাখালি গ্রামের আবদুল আজিজের স্ত্রী শেফালী খাতুন শোনালেন তার কষ্টগাঁধা জীবনের কথা। জানা গেল, দীর্ঘ পনের বছর ধরে ডিঙি নৌকায় মানুষ পারাপার করছেন। সুস্থ থাকলে মাঝে মধ্যে স্বামী আবদুল আজিজও নৌকায় মানুষ পারাপার করেন।

    তিন ছেলে ও এক মেয়ের সংসারে অভাব অনটন লেগেই থাকতো। ছেলেরা বড় হয়ে বিয়ের পর এখন আলাদা থাকেন। মেয়ে বিয়ে দিয়েছেন। শারীরিক ভাবে শেফালী খাতুন খুব একটা সুস্থ নন, তবুও রাতদিন তার ডিঙি নৌকা চিকনাই নদীর এপার-ওপার বয়ে চলে।

    তিনি জানান, চোখের সমস্যা, বার্ধ্যক্যজনিত কারণে স্বামী আবদুল আজিজ এখন পরিশ্রম করতে পারেন না। স্বামীকে নিয়ে নদী পাড়ের একটি টিনের ছাপড়া ঘরে বসবাস করেন তিনি। ওষুধ কেনা, সংসার চালানো থেকে শুরু করে সবকিছুই হয় নদী পারাপারের টাকায়। তবে আয় ভালো না হওয়ায় অনেক কষ্টে চলে তাদের সংসার।

    ভারাক্রান্ত মনে শেফালী খাতুন বলেন, ‘অনেক কষ্টে ছেলে মেয়েদের বড় করে বিয়ে দিয়েছি। কিন্তু এখন তারা যে যার মতো আলাদা থাকে। আমাদের কষ্ট আগেও যা ছিল এখনও তাই আছে।’ তবে সরকারি কোন সুযোগ সুবিধা পেলে শেষ বয়সে একটু কষ্ট লাঘব হতো বলে জানান তিনি।

    উপজেলা সমাজ সেবা কর্মকর্তা মো. রেজাউল করিম জানান, বিষয়টি অত্যন্ত দুঃখজনক। ইউনিয়ন কমিটি থেকে তার নাম আমাদের কাছে আসেনি। আর বিষয়টি বিষয়টি কখনও কেউ জানায় নি। তবে অতিসত্তর শেফালী খাতুন নামে ওই বৃদ্ধার ভাতার কার্ডের ব্যবস্থা করা হবে।

    উপজেলা নির্বাহী অফিসার সরকার অসীম কুমারকে বিষয়টি জানালে তিনি বলেন, অবশ্যই ওই বৃদ্ধার (শেফালী খাতুন) ব্যাপারে খোঁজ খবর নিয়ে উপজেলা প্রশাসন থেকে সব রকমের সহযোগিতা করা হবে।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    পৃথিবীর যে দেশে কোন সাপ নেই?

    ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯

    আর্কাইভ

    সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
     
    ১০
    ১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
    ১৮১৯২০২১২২২৩২৪
    ২৫২৬২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে আমরা