• শিরোনাম

    জর্জিয়াসহ যুক্তরাষ্ট্রের ১২ রাজ্যে ছড়িয়েছে করোনা ভাইরাস

    মানচিত্র ডেস্ক | ০৪ মার্চ ২০২০ | ৩:৪২ অপরাহ্ণ

    জর্জিয়াসহ যুক্তরাষ্ট্রের ১২ রাজ্যে ছড়িয়েছে করোনা ভাইরাস

    প্রতীকি ছবি

    যুক্তরাষ্ট্রের ১২টি রাজ্যে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। এতে শতাধিক ব্যক্তি আক্রান্ত হয়েছেন। বুধবার তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে করোনায় যুক্তরাষ্ট্রে নয়জন মারা গেছেন। এদিকে, করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় ৩ মাসের বেতন দিয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। করোনা রোগীদের জন্য বীমা খুলছে যুক্তরাষ্ট্র। খবর সিএনএন ও রয়টার্সের।

    যুক্তরাষ্ট্রের সেন্টার ফর ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড প্রিভেনশনের (সিডিসি) তথ্য অনুযায়ী, করোনায় যুক্তরাষ্ট্রে ১০৬ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এরমধ্যে ৪৫ জন প্রমোদতরী ডায়মন্ড প্রিন্সেসের যাত্রী ছিলেন। এর বাইরে তিনজনকে চীনের উহান শহর থেকে ফিরিয়ে আনা হয়। করোনা আতঙ্ক নিয়ে বিভিন্ন বন্দর ঘুরে ডায়মন্ড প্রিন্সেস জাপানের ইয়োকোহামা বন্দরে নোঙর করে। এ প্রমোদতরীর যাত্রীদের মাধ্যমে অনেক দেশে ভাইরাসটি ছড়িয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

    যুক্তরাষ্ট্রের রাজ্যগুলোর মধ্যে ওয়াশিংটনে সবচেয়ে বেশি সংখ্যক মানুষ করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এখানে ১৮ জন আক্রান্ত হয়েছেন ও ছয়জন মারা গেছেন। এরপর আক্রান্তের দিক থেকে দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে ক্যালিফোর্নিয়া। এখানে ২০ জন আক্রান্ত হয়েছেন। এর বাইরে ইলিনয়ে চারজন, নিউইয়র্কে দু’জন, ফ্লোরিডায় দু’জন, অ্যারিজোনায় একজন, ম্যাসাচুসেটসে দু’জন, ওরেগনে তিনজন, রোড আইল্যান্ডে দু’জন, উইসকনসিনে একজন, নিউ হ্যাম্পশায়ারে একজন এবং জর্জিয়ায় দু’জনের শরীরে করোনাভাইরাস ধরা পড়েছে।

    ওয়াশিংটন রাজ্যের কির্কল্যান্ডের একটি নার্সিং হোমে করোনা আক্রান্ত চারজনের মৃত্যু হয়। নার্সিং হোম লাইফ কেয়ার সেন্টারে চিকিৎসাধীন ৫০ জনের বেশি বাসিন্দা ও কর্মীর করোনাভাইরাসের লক্ষণ রয়েছে।

    ওয়াশিংটনের সিনেটর প্যাটি মুরে বলেন, এ রাজ্যে করোনাভাইরাসে মৃত্যুর সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আভাস দেয়া হয়েছে। রাজ্যের বাসিন্দারা খুব আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন। অসুস্থদের পরীক্ষা করার পর ফলাফল দিতে অনেক দেরি হচ্ছে। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলছে, নর্থ ক্যারোলিনায় এক ব্যক্তির দেহে পরীক্ষায় করোনাভাইরাস পাওয়া গেছে। তিনি ওয়াশিংটন সফরে গিয়ে সংক্রমিত হয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। একটি নার্সিং স্থাপনা থেকে ভাইরাসটি ছড়িয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

    এ অবস্থায় মার্কিন নাগরিকদের বিদেশ সফরে বিধিনিষেধ আরোপ করতে পারে মার্কিন প্রশাসন। তবে এক্ষেত্রে অভ্যন্তরীণ সফরে কোনো বিধিনিষেধের কথা ভাবছে না প্রশাসন। নিউইয়র্কের গভর্নর অ্যান্ডু কুমো বলেন, এখানে দ্বিতীয় ব্যক্তির করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। ওয়েস্টচেস্টারের বাসিন্দা ওই ব্যক্তি ম্যানহাটনে কাজ করতেন। সম্প্রতি ইরান ঘুরে আসা ৩৯ বছর বয়সী একজন স্বাস্থ্যকর্মীর দেহে এ ভাইরাস ধরা পড়েছে। তবে নতুন যিনি আক্রান্ত হয়েছেন তিনি চীন বা করোনাভাইরাস আক্রান্ত কোনো দেশে যাননি। তবে সম্প্রতি তিনি মিয়ামি গিয়েছিলেন।

    করোনাভাইরাস আতঙ্কে বিদেশে অধ্যয়নরত স্পন্সরড শিক্ষার্থীদের সফর স্থগিত করেছে কলাম্বিয়া ও নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটি। পরবর্তী নোটিশ না দেয়া পর্যন্ত সফরে স্থগিতাদেশ থাকবে। আক্রা, বার্লিন, বুয়েন্সআয়ার্স, লন্ডন, মাদ্রিদ, প্যারিস, প্রাগ, সিডনি ও তেলআবিবে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে যোগাযোগ করেছে নিউইয়র্ক ইউনিভার্সিটি। সেখানে নিজ খরচে পড়াশোনা অব্যাহত রাখা অথবা বাসায় ফিরে যেতে এবং পড়াশোনা একাকী অব্যাহত রাখার আহ্বান জানানো হয়েছে।

    করোনা চিকিৎসায় ট্রাম্পের ৩ মাসের বেতন দান : বিশ্বজুড়ে দ্রুত ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় নিজের ৩ মাসের বেতনের অর্থ দান করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। মার্কিন হেলথ অ্যান্ড হিউম্যান সার্ভিসেস ডিপার্টমেন্টকে ২০১৯ সালের শেষ ৩ মাসের বেতনের সমপরিমাণ অর্থ প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প দান করেছেন। হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি স্টিফেনি গ্রিশাম একটি ব্যাংক চেকের ছবি পোস্ট করেছেন। ওই চেকের মাধ্যমে হেলথ অ্যান্ড হিউম্যান সার্ভিসেস ডিপার্টমেন্টের সেক্রেটারি অ্যালেক্স আজারকে ট্রাম্প তার বেতন থেকে এক লাখ ডলার দান করেন।

    এক সংবাদ সম্মেলনে অ্যালেক্স আজার বলেন, ‘আমি খুবই আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি করোনাভাইরাস প্রতিহত করতে এবং এর চিকিৎসায় নিজের ৩ মাসের বেতন দান করেছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। এরই মধ্যে ৮০টি দেশ ও অঞ্চলে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। সারা বিশ্বে এ ভাইরাসে এখন পর্যন্ত তিন হাজার ২০২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এরমধ্যে চীনে দুই হাজার ৯৮১ জন মারা গেছেন। শুধু চীনেই আক্রান্ত হয়েছেন ৮০ হাজার ২৭০।

    সারা বিশ্বে আক্রান্তের সংখ্যা ৯৩ হাজার ছাড়িয়েছে। এরমধ্যে চীনের বাইরে সবচেয়ে বেশি আক্রান্তের সংখ্যা দক্ষিণ কোরিয়ায়। সে দেশে পাঁচ হাজার ৩২৮ জন আক্রান্ত হয়েছেন। তবে আশার কথা, ৫০ হাজার ৬৯১ জনেরও বেশি মানুষ সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরে গেছেন।

    Comments

    comments

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    ভিপি নুরের বিলাসী জীবন!

    ০৫ ডিসেম্বর ২০১৯

    আর্কাইভ

    সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
     
    ১০১১১২
    ১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
    ২০২১২২২৩২৪২৫২৬
    ২৭২৮২৯৩০  
  • ফেসবুকে আমরা