আজ বুধবার | ১৫ আগস্ট২০১৮ | ৩১ শ্রাবণ১৪২৫
মেনু

স্ত্রীর খাওয়া বিষে প্রাণ গেল স্বামীর!

মানচিত্র ডেস্ক | ০৫ জুন ২০১৮ | ২:৫২ অপরাহ্ণ

ছবি- সংগৃহীত

স্বামীর কাছে স্ত্রীর আবদার, হাট থেকে এনে দিতে হবে নতুন ব্লাউজ। স্বামী ব্লাউজের বায়না না মেটানোয়, বিষ খেয়ে  আত্নহত্যার চেষ্টা করে স্ত্রী। আর স্ত্রীর আচরণে ক্ষুব্ধ হয়ে বিষের বাকিটা খেয়ে মৃত্যু হল স্বামীর।

এমন বেনজির আত্মঘাতীর ঘটনা ঘটছে ভারতের উত্তর পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের দিনাজপুরের কালিয়াগঞ্জের বকদুয়ার গ্রামে।

ঘটনার সূত্রপাত গত সোমবার। উদয় রায় নামে ওই ব্যক্তি ধনকৈল হাটে গিয়েছিলেন ধান বিক্রি করতে। হাট থেকে ব্লাউজ কিনে আনার আবদার করেন তার স্ত্রী লতিকা। কিন্তু ভুলবশত ব্লাউজের বদলে মুরগির মাংস কিনে বাড়ি ফেরেন তিনি।

স্বামীর কাণ্ড দেখে  রীতিমতো রেগে যান স্ত্রী। ব্লাউজ নিয়ে এতটাই বচসা চরমে ওঠে যে উদয়ের আনা মাংস রান্না করতে অস্বীকার করেন লতিকা। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে সেই মাংস রান্না করে নেন উদয়ের মা। উদয়ের মায়ের এই কাণ্ডে আগুনে ঘি পড়ে।

এরপর লতিকা দোকান থেকে বিষ এনে তা খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। বছর বাইশের লতিকাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এই মুহূর্তে কালিয়াগঞ্জ স্টেট জেনারেল হাসাপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ছেন তিনি।

স্থানীয় বাসিন্দারা গণমাধ্যমকে জানান, স্ত্রীর খাওয়া বাকি বিষ নিয়ে বাইরে বেরিয়ে যান উদয়। অনেক রাত পর্যন্ত ঘরে না ফেরায় খোঁজাখুঁজি শুরু হয়।  প্রতিবেশিরা প্রথমে সন্দেহ করেন, ট্রেন ধরে হয়ত দিল্লি চলে গেছেন উদয়। কিন্তু পরের দিন সকালে পাশের আমবাগানে তার মরদেহ উদ্ধার হয়।

বিষয়টি জানাজানি হতেই এলাকায় চাঞ্চল্য ছড়ায়। খবর দেওয়া হয় কালিয়াগঞ্জ থানার পুলিশকে। খবর পেয়ে পুলিশ এসে উদয়ের মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য জেলা হাসপাতালের মর্গে পাঠায়। ঘটনার তদন্ত চলছে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছে পুলিশ।

 

 

Comments

comments

x