আজ রবিবার | ২০ মে২০১৮ | ৬ জ্যৈষ্ঠ১৪২৫
মেনু

জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে আটলান্টার ব্যান্ডদল “মাদল”

এ এইচ রাসেল | ২৮ জানু ২০১৮ | ৩:১৪ অপরাহ্ণ

যুক্তরাষ্ট্রের আটলান্টায় ‘মাদল’ একটি সাড়াজাগান ও প্রতিশ্রুতিময় জনপ্রিয় ব্যন্ড। প্রথিতযশা এবং প্রতিভাবান কন্ঠ ও সঙ্গীত শিল্পীদের নিয়ে গড়ে উঠা এই ব্যান্ড দল বাংলার ঐশ্বর্য্যময় ও ঐতিহ্যবাহী লোকসংগীতকে শৈল্পিক ও নান্দনিক সমেত নতুনভাবে সকল শ্রেণীর শ্রোতাদের মাঝে পৌঁছে দেয়।

বাংলার লোকায়ত অঞ্চলের কিছু বাদ্যযন্ত্র যেমন হারমোনিয়ম, তবলা, খোল, খমক, একতারা- মাদল তাঁদের পরিবেশনায় ব্যবহার করে, যাতে মাটির টানের মেজাজটি অক্ষুন্ন রেখে, গান বা সুর প্রাধান্য পায়।

নানারকম সুর ও স্বরের পরীক্ষণমূলক ফিউশনের মধ্য দিয়ে, বাউল, ভাটিয়ালী, বিহু, ঝুমুর, সাঁওতাল ও সুফি সঙ্গীতকে মাদল নতুনভাবে উপস্থাপিত করার চেষ্টা করে চলেছে।

আবার একই সাথে চিরায়ত লোকসংস্কৃতির ভাবনা মাথায় রেখেই, মাদল সব যন্ত্রানুসঙ্গেও লোকায়ত ব্যাপারটিকে প্রাধান্য দেয়-যার মধ্যে রয়েছে: , ম্যন্ডোলিন, ব্যন্জো, একুইসটিক গীটার, ভায়োলিন, উকেলে জাম্বি। লোকগানই একমাত্র শুরু ও শেষ কথা হবে -এই প্রকল্পে জন্ম ও লক্ষ্য হল স্বপ্নের ব্যন্ড ‘মাদল’ -এর।

সংস্থা নির্বিশেষে, আটলান্টার গুণী বাঙালী শিল্পী ও মিউজিশিয়ানদের নিয়ে তৈরী এই দল খুব অল্প সময়ের মধ্যেই উত্তর আমেরিকার বিভিন্ন প্রান্তের অনুষ্ঠানে সবেতেই নিজেদের কৃতিত্বের সাক্ষর রেখেছে- যার মধ্যে বিশেষভাবে উল্লেখযোগ্য-বঙ্গমেলা ২০১৭, ন্যাশভিল, BPACON ন্যাশভিল, বঙ্গোৎসব সাউথ কেরোলাইনা, বাগা আয়োজিত আনন্দমেলা ও কালীপুজো, দুর্গোৎসব উপলক্ষ্যে পুজাপরিষদ আটলান্টা ও আগমনী আটলান্টা, পিঠে উৎসব -বাংলাদেশ ফাউন্ডেশন অব জর্জিয়ার অনুষ্ঠান ।

জনগণের শুভকামনা সম্বল করে ক্রমাগত জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে মাদল, পেশাদারী লোকব্যন্ড হিসেবে। সুরজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়ের নেতৃত্বে মাদলের শিল্পীরা হলেন অমিতাভ সেন, অপলা বন্দ্যোপাধ্যায়, পিয়া সেনগুপ্ত, গার্গী চক্রবর্তী, অরিন্দম চৌধুরী, ব্যসদেব সাহা, অরূপ ধর, শুভশ্রী নন্দী।

Comments

comments

এই বিভাগের আরও খবর
x