আজ রবিবার | ১৯ নভেম্বর২০১৭ | ৫ অগ্রহায়ণ১৪২৪
মেনু

রাজাপুরে অগ্নিকান্ডে ৬টি বসত ঘর পুড়ে ছাই

মানচিত্র ডেস্ক | ০৬ মে ২০১৭ | ১:০৮ অপরাহ্ণ

Rajapur

ঝালকাঠির রাজাপুরের গালুয়া ইউনিয়নে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। শনিবার সকাল ১০টার দিকে ইউনিয়নের দক্ষিণ পুটিয়াখালি গ্রামের গাজির হাট এলাকার গাজিবাড়িতে ভয়াবহ এ অগ্নিকান্ডে ৬টি বসতঘর সম্পূর্ণভাবে ভস্মিভূত হয়ে গেছে। চার্জে দেয়া চার্জার লাইট বিস্ফোরিত হয়ে এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে বলে ফায়ার সাভিস সূত্রে জানা গেছে। এ ঘটনায় আরও ৩টি বসতঘর আংশিক ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে বরে জানা গেছে। অগ্নিকান্ডে অর্ধকোটি টাকারও বেশি ক্ষতি হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্থরা দাবি করেছেন। খবর পেয়ে পার্শ্ববর্তী ভান্ডারিয়া উপজেলার ফায়ার সার্ভিসের ২টি ইউনিট এসে প্রায় দুই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রনে আনে। বর্তমানে গাছতলায় আশ্রয় নিয়েছে সর্বস্ব হারানো পরিবারগুলোর শিশু-নারীসহ সকলে।

জানা গেছে, শনিবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে দক্ষিণ পুটিয়াখালি গ্রামের গাজির হাট এলাকার বড় গাজি বাড়ির সৈয়দ গাজির ঘরে বিদ্যুতে চার্জে দেয়া চার্জার লাইট বিস্ফোরিত হয়ে সৃষ্ট অগ্নিকান্ডে সৈয়দ গাজি, আতাহার খান, রেজোয়ান গাজি, ইউসুফ গাজি, নূরা গাজি ও জুড়া গাজির বসতঘর পুড়ে সম্পূর্ণ ভস্মিভূত হয়ে ধান, চাল, সোনার গহনা, টাকা ও মূল্যবান কাগজপত্রসহ সকল মালপত্র ছাই হয়ে যায়। এতে পাশের মোসলেম গাজি, মঞ্জুর গাজি ও নাসির গাজির ঘর আগুনের লেলিহানের ছোঁয়ায় আংশিক ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। এ ঘটনায় কয়েক লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের সদস্যরা দাবি করেছেন।

ভান্ডারিয়া ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন কর্মকর্তা আহাজার উদ্দিন জানান, ঝালকাঠি ফায়ার সার্ভিস ইউনিট আসার পূর্বেই খবর পেয়ে ভান্ডারিয়া ফায়ার সার্ভিসের ২টি ইউনিট এসে প্রায় দুই ঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রনে আনতে সক্ষম হয়। প্রাথমিক ভাবে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিটের মাধ্যমে আগুন লেগেছে বলে জানা গেছে।

উপজেলা চেয়ারম্যান মো. মনিরুজ্জামান মনির ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে ক্ষতিগ্রস্থদের সহায়তার আশ্বাস দিয়েছেন। সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিলন মাহমুদ বাচ্চু, ভারপ্রাপ্ত ইউএনও আনিচুর রহমান ও পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন।

Comments

comments

x